চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

অস্ট্রেলিয়ায় ১০টি দেশের দূতাবাসে ‘সন্দেহজনক’ পার্সেল

অস্ট্রেলিয়া অন্তত ১০টি আন্তর্জাতিক দূতাবাসে ‘সন্দেহজনক প্যাকেজ’ পেয়েছে কর্তৃপক্ষ।

দেশটির মেলবোর্ন ও ক্যানবেরায় অবস্থিত মিশনগুলোতে বুধবার এই প্যাকেজ বা পার্সেল পাওয়ার ঘটনা ঘটেছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

মেলবোর্নের মেট্রোপলিটান ফায়ার ব্রিগেড জানিয়েছে, প্যাকেজগুলোতে বিস্ফোরক দ্রব্য রয়েছে সন্দেহে শহরের বিভিন্ন এলাকায় অবস্থিত থেকে বুধবার তাদের ডাকা হয়েছে। অ্যাম্বুলেন্স ভিক্টোরিয়া থেকেও বিভিন্ন গণমাধ্যমকে একই তথ্য দেয়া হয়েছে।

Advertisement

ব্রিটিশ কনস্যুলেট (কলিন্স স্ট্রিট), মার্কিন কনস্যুলেট (সেইন্ট কিলডা রোড), কোরিয়ান কনস্যুলেট (সেইন্ট কিলডা রোড), ভারতীয় কনস্যুলেট (সেইন্ট কিলডা রোড), জার্মান কনস্যুলেট (কুইন স্ট্রিট), ইটালিয়ান কনস্যুলেট (সেইন্ট কিলডা রোড), সুইস কনস্যুলেট (অ্যাশউড), পাকিস্তান কনস্যুলেট (কার্ডিগান প্লেস), গ্রিক কনস্যুলেট (অ্যালবার্ট রোড) এবং ইন্দোনেশিয়ান কনস্যুলেটে (কুইনস রোড) এই রহস্যময় পার্সেল পাওয়ার ঘটনা ঘটেছে বলে জানিয়েছে এনডিটিভি।অস্ট্রেলিয়া-অস্ট্রেলিয়ায় দূতাবাসে-কনস্যুলেটে সন্দেহজনক প্যাকেজ

বিবিসি ও এনডিটিভি জানিয়েছে, জরুরি ব্যবস্থা কর্মীদের বেশ কয়েকটি দূতাবাস ভবনে কেমিক্যাল স্যুট পরে ঢুকতে দেখা গেছে। সরকারি ওয়েবসাইটে এসব ভবনের আশপাশের এলাকায় বিপজ্জনক রাসায়নিকের উপস্থিতি থাকতে পারে – এরকম অন্তত ডজনখানেক সতর্কবার্তা ইস্যু করা হয়েছে।

তবে এখনো হতাহতের কোনো খবর পাওয়া যায়নি। আর কোনো কনস্যুলেটে এ জাতীয় প্যাকেজ পাওয়ার খবরও মেলেনি এখনো।

এর মাত্র দু’দিন আগেই সিডনিতে অবস্থিত আর্জেন্টিনীয় কনস্যুলেটে ‘সন্দেহজনক’ সাদা পাউডার জাতীয় দ্রব্য পাওয়া গিয়েছিল।