চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

অস্ট্রেলীয় সংবাদপত্রের সম্মিলিত কঠোর প্রতিবাদ

গণমাধ্যমের স্বাধীনতা সুরক্ষায় এই প্রতিবাদ

রাষ্ট্রীয় গোপনীয়তার কথা বলে আইন করে সংবাদপত্র প্রকাশে বাধা দেয়ায় অস্ট্রেলিয়ার সংবাদপত্রগুলো অভিনব প্রতিবাদ করেছে।

এই তীব্র প্রতিবাদের অংশ হিসেবে দেশটির পত্রিকাগুলো তাদের প্রথম পৃষ্ঠার সংবাদ কালো কালিতে মুছে দিয়েছে।

বিজ্ঞাপন

সাংবাদিকরা জানিয়েছেন, আইনের মাধ্যমে অস্ট্রেলিয়ায় সংবাদপত্রে গোপনীয়তার সংস্কৃতি চালু হতে পারে, যা সংবাদপত্রের স্বাধীনতা সুরক্ষার বিপরীত। সরকার কথায় বলে তারা গণমাধ্যমের স্বাধীনতার পক্ষে, কিন্তু তা বাস্তবতার সম্পূর্ণ উল্টো। তাই গণমাধ্যমের স্বাধীনতা সুরক্ষায় এ প্রতিবাদ জানানো হয়েছে।

সোমবার ‘রাইট টু নো কোয়ালিশন’ এর ব্যানারে সংবাদপত্রগুলোর এই অভিনব প্রতিবাদে সমর্থন দিয়েছে কয়েকটি রেডিও, টেলিভিশন ও অনলাইন চ্যানেল।

বিজ্ঞাপন

এবিসির ব্যবস্থাপনা পরিচালক ডেভিড অ্যান্ডারসন জানিয়েছেন: অস্ট্রেলিয়া বিশ্বের সবচেয়ে গোপনীয় গণতন্ত্র হওয়ার ঝুঁকিতে রয়েছে।

নিউজ কর্পোরেশন অস্ট্রেলিয়ার নির্বাহী চেয়ারম্যান মাইকেল মিলার টুইটারে ব্ল্যাক আউট পেপারের একটি চিত্র তুলে ধরে বলেছেন: অস্ট্রেলিয়ার নাগরিকদের গণমাধ্যমের স্বাধীনতার ওপর সরকার প্রতিনিয়ত হস্তক্ষেপ করছে। অস্ট্রেলিয়ার নাগরিকরা জানতে চায়, তারা আমার কাছ থেকে কী লুকানোর চেষ্টা করছে? আর একজন সাংবাদিক কেন সংবাদ গোপন রাখবে?

তাই এমন অভিনব কৌশলে সরকারের গোপনীয়তার প্রতিবাদ জানিয়েছেন তিনি।

অন্যদিকে অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসন বলেছেন: অস্ট্রেলিয়ার গণতন্ত্র রক্ষার জন্য সংবাদপত্রের স্বাধীনতা গুরুত্বপূর্ণ, তবে আইনের শাসন রক্ষা করাও দরকার।

এর আগে চলতি বছরের জুনে অস্ট্রেলিয়ান ব্রডকাস্টিং কর্পোরেশন (এবিসি) এবং নিউজ কর্পোরেশন অস্ট্রেলিয়ায় কর্মরত এক সাংবাদিকের বাড়িতে পুলিশের অভিযান চলাকালে এক বিশাল প্রতিবাদ প্রকাশ করেছিল অস্ট্রেলিয়ার সংবাদপত্র।

Bellow Post-Green View