চ্যানেল আই অনলাইন
হৃদয়ে বাংলাদেশ প্রবাসেও বাংলাদেশ

অভিনেতা খলিল উল্লাহ খান চলে যাওয়ার ছয় বছর

বরেণ্য অভিনেতা খলিল উল্লাহ খানের ষষ্ঠ মৃত্যুবার্ষিকী ৭ ডিসেম্বর। ২০১৪ সালের এই দিনে মৃত্যুবরণ করেন বর্ষীয়ান এ অভিনেতা। আজ এ অভিনেতার চলে যাওয়ার ছয় বছর।

১৯৩৪ সালের পহেলা ফেব্রুয়ারি সিলেটের কুমারপাড়ায় জন্মগ্রহণ করেন খলিল উল্লাহ খান। পাঁচ দশকেরও বেশি সময় ধরে দাপটের সঙ্গে প্রায় আটশ সিনেমায় অভিনয় করেছেন খলিল।

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

তবে তার অভিনয়ের শুরুটা হয়েছিল টিভি নাটকের মধ্যদিয়ে। ‘গুণ্ডা’ সিনেমাতে অভিনয়ের জন্য তিনি পেয়েছিলেন জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার। ১৯৫৯ সালে ‘সোনার কাজল’ সিনেমাতে প্রথম অভিনয় শুরু করেন। এর আগে বেশ কয়েকটি নাটকেও অভিনয় করেন তিনি।

খলিল অভিনীত উল্লেখযোগ্য চলচ্চিত্রের মধ্যে রয়েছে ‘প্রীত না জানে রীত’, ‘সংগম’, ‘ভাওয়াল সন্ন্যাসী’, ‘ক্যায়সে কাহু’, ‘জংলি ফুল’, ‘আগুন’, ‘পাগলা রাজা’, ‘মিন্টু আমার নাম’, ‘ওয়াদা’, ‘বিনি সুতার মালা’, ‘বউ কথা কও’, ‘কাজল’ প্রভৃতি।

নবাব সিরাজ-উদ-দৌলা সিনেমায় মীরজাফরের চরিত্রে অনবদ্য অভিনয় করে দর্শকের কাছে প্রশংসিত হয়েছিলেন তিনি। এছাড়া শহিদুল্লাহ কায়সারের ‘সংশপ্তক’ উপন্যাস অবলম্বনে নির্মিত নাটকে মিয়া ব্যাটা চরিত্রে অভিনয় করে ব্যাপকভাবে সমাদৃত হন খলিল উল্লাহ খান।