সম্পাদকীয়

বাংলার প্রতিটি মানুষের মনের ঘরে প্রিয় নায়ক ও কিংবদন্তী অভিনেতা নায়করাজ রাজ্জাক ইন্তেকাল করেছেন (ইন্না লিল্লাহি…রাজিউন)। নীল আকাশের নীচে, ছুটির ঘণ্টা, অশিক্ষিত, নাচের পুতুল, রাজলক্ষী শ্রীকান্ত, বাবা কেন চাকর, ওরা ১১ জনসহ বহু সিনেমায় অভিনয় করা এই কিংবদন্তীর মৃত্যুতে শোকের ছায়া নেমে এসেছে চলচ্চিত্র অঙ্গনসহ সারাদেশের সাধারণ মানুষের মধ্যে। গুলশানের নিজ বাসায় বিকেল ৫টার দিকে অসুস্থতাবোধ করলে তাকে ইউনাইটেড হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে চিকিৎসকরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৭৬ বছর। নিজ অভিনয় গুণে ও ব্যক্তিগত জীবনের সরলতায় তিনি ছিলেন চলচ্চিত্র জগতের সবার শ্রদ্ধার পাত্র। কালজয়ী এই অভিনেতার মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেছেন রাষ্ট্রপতি মোহাম্মদ আব্দুল হামিদ এবং প্রধানমন্

By সম্পাদনা পর্ষদ on সোমবার, ২১ অগাস্ট ২০১৭ ২১:২৭

বিদেশে থাকায় ’৭৫-এর ১৫ অাগস্ট প্রাণে বেঁচে গিয়েছিলেন বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা  ও তার বোন শেখ রেহানা। নানা প্রতিকূলতা আর জীবনের প্রতি হুমকি থাকার পরও ‘৮১ সালে দেশে ফিরে এসেছিলেন আওয়ামী লীগের প্রধান হয়ে। সেই থেকে বহুবার তার প্রাণনাশের চেষ্টা হয়েছে। তবে সবচেয়ে ভয়াবহ হামলার ঘটনা ঘটে ২০০৪ সালের ২১ আগস্ট। আর ভয়ংকর এক হত্যা চেষ্টা চালানো হয় ২০০০ সালের ২০ জুলাই গোপালগঞ্জের কোটালীপাড়ায়। শেষের ঘটনার ১৭ বছর পর রোববার আদালত ১০ জনকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন। একই ঘটনায় বিস্ফোরক মামলায়  ৯ জনকে ২০ বছর করে কারাদণ্ডাদেশ দেয়া হয়। আমরা এখানে অবাক হয়ে লক্ষ্য করছি; আলোচিত এ মামলাটির বিচারকাজ শেষ হতে দীর্ঘ ১৭ বছরেরও বেশি সময় লাগলো। এখানেই শেষ নয়, এরইমধ্যে ১৩ বছর পেরিয়ে গেলেও বিচারিক আদালতেই শেষ করা

By সম্পাদনা পর্ষদ on রবিবার , ২০ অগাস্ট ২০১৭ ১৮:৩৭

আবার একটি বড় বন্যার মুখে পড়েছে দেশ। গত ৭৫ থেকে ১০০ বছরের মধ্যে সবচেয়ে বেশি পানি ব্রহ্মপুত্র, গঙ্গা ও তিস্তা অববাহিকায়। উজানের সেই পানিই নেমে আসছে নদ-নদী ছাপিয়ে। প্রতিদিনই বন্যায় ক্ষয়-ক্ষতির পরিমাণ বাড়ছে। দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের সর্বশেষ পরিসংখ্যান জানাচ্ছে, এখন পর্যন্ত দেশের ১৩৩টি উপজেলা, ৪৩টি পৌরসভা, ৮৫৫টি ইউনিয়ন এবং ৫ হাজার ৪৬৯টি গ্রাম ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। এসব এলাকায় ৬ লাখ ১৮ হাজার ৭০৯ হেক্টর ফসলী জমি, ১৪ হাজার ৭৩৭টি ঘরবাড়ি পুরোপুরি এবং ২ লাখ ৪৭ হাজার ৮২৬টি ঘরবাড়ি আংশিক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। আর স্কুলঘর ডুবে যাওয়ায় বন্ধ হয়ে গেছে ৩ হাজার ১৯৭টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। পানিতে ডুবে, সাপের কামড়ে মারা গেছে  শতাধিক মানুষ। এই অবস্থায় দেশের কোথাও বন্যা পরিস্থিতির কিছুটা উ

By সম্পাদনা পর্ষদ on শনিবার, ১৯ অগাস্ট ২০১৭ ১৮:২৯

সন্ত্রাসবাদ এবং জঙ্গিদের বিরুদ্ধে সারাবিশ্বে যখন জিরো টলারেন্স নীতি গ্রহণ করা হচ্ছে তখন নারায়ণগঞ্জে জঙ্গিবিরোধী অভিযানে নিহত তামিম চৌধুরীর মরদেহ কেন তার পরিবারকে দেওয়া হলো না এ বিষয়ে বাংলাদেশ সরকারের কাছে জানতে চেয়েছে ঢাকার কানাডীয় হাইকমিশন। পররাষ্ট্রমন্ত্রী মন্ত্রণালয়ে পাঠানো এক চিঠিতে কেন তার লাশ দাফন করার বিষয়টি তাদের জানানো হলো না, তাও জানতে চাওয়া হয়েছে। এছাড়া তামিমের বিষয়ে জানতে চেয়ে গত এক বছরে কানাডীয় হাইকমিশন পাঁচবার চিঠি পাঠায় বলেও জানা গেছে। এটা অজানা নয় যে, হলি আর্টিজানে হামলার পর জঙ্গিবাদবিরোধী প্রবল জনমতের কারণে নিহত জঙ্গিদের পরিবার তাদের লাশ গ্রহণ করেনি। এর মাধ্যমে মূলত: দেশে জঙ্গিদের ঘৃণা এবং সামাজিকভাবে বয়কটের ইতিবাচক দিক ফুটে উঠেছে। এরই ধারাবাহিকতায় হলি

By সম্পাদনা পর্ষদ on শুক্রবার, ১৮ অগাস্ট ২০১৭ ১৭:২৯

শিশুর আঁকা বঙ্গবন্ধুর ছবি দিয়ে কার্ড করে কিছুদিন আগে বিপদে পড়েছিলেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তারিক সালমন। মামলায় হাজতবাস পর্যন্ত করতে হয়েছে ওই সরকারী কর্মকর্তাকে। সেই ঘটনা প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় পর্যন্ত গড়িয়েছিল। গণমাধ্যমসহ সামাজিক মাধ্যমগুলোতে চলেছিল আলোচনা ও সমালোচনার ঝড়। একজন দলীয় নেতার অতি উৎসাহী কর্মকাণ্ডের কারণে সরকারের জন্য ওই বিব্রতকর ঘটনা ঘটেছিল। এবার ৫৭ ধারা বা মামলার ঘটনা না হলেও আরেক ধরণের আচরণ লক্ষ করা গেছে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ে। জাতীয় শোক দিবসে ‘ক্লাস নেওয়ার অপরাধে’ কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের প্রভাষক এবং ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মাহবুবুল হক ভূঁইয়া তারেককে এক মাসের বাধ্যতামূলক ছুটি দিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। ওই শিক্

By সম্পাদনা পর্ষদ on বৃহস্পতিবার, ১৭ অগাস্ট ২০১৭ ১৯:০৯

প্রতিবছর প্রাথমিক সমাপনী থেকে শুরু করে এইচএসসিসহ বিভিন্ন পাবলিক পরীক্ষায় ফলাফল প্রকাশের পরে উচ্ছ্বাসের খবরের সঙ্গে মনখারাপ করা খবরও প্রকাশ পায়। জিপিএ-৫ এর দৌড়ে কিছুটা পিছিয়ে পড়ে নয়তো অকৃতকার্য হয়ে কেউ কেউ আত্মহত্যা পর্যন্ত করে। কয়েক বছর ধরে বিষয়গুলো নিয়ে নানা আলোচনা চলছে। সম্প্রতি চ্যানেল আইয়ে প্রচারিত এক প্রতিবেদনে এই বিষয়ের কারণ ও প্রতিকার সন্ধান করা হয়েছে। শিক্ষার্থী, অভিভাবক, মনোরোগ বিশেষজ্ঞসহ শিক্ষামন্ত্রীর বক্তব্যের মাধ্যমে উঠে এসেছে বিষয়টি। পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশের পর শিক্ষার্থীদের আত্মহত্যার ঘটনায় অভিভাবক ও সমাজকে দায়ী করেছেন শিক্ষকরা। মনোরোগ বিশেষজ্ঞরাও অভিভাবকের সঙ্গে সঙ্গে শিক্ষার প্রচলিত পদ্ধতি ও মূল্যায়নকে দায়ী করেছেন। আর শিক্ষামন্ত্রী খারাপ ফলাফল বা ফেল করা শিক্

By সম্পাদনা পর্ষদ on বুধবার, ১৬ অগাস্ট ২০১৭ ১৯:০০

বন্যা পরিস্থিতির উন্নতি আর অবনতির সঙ্গে সঙ্গে রাজধানীবাসির জন্য নতুন আশঙ্কা। দেশের উত্তরে কয়েক জেলায় বন্যা পরিস্থিতির উন্নতি হয়েছে, আর কয়েকটিতে অবনতির মধ্যে ঢাকার নিম্নাঞ্চল এবং মধ্যাঞ্চলের ৯ জেলাতেও বন্যার আশঙ্কা করা হচ্ছে। ঢাকার দিকে ধেয়ে আসা বন্যার সর্তকতা হিসেবে ঢাকার দুই সিটি কর্পোরেশনকে সতর্ক থাকার পরামর্শ দিয়ে চিঠি পাঠিয়েছে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা অধিদপ্তর। এমাসের ১৯-২০ তারিখ নাগাদ বন্যাকবলিত হয়ে পড়তে পারে ঢাকার নিম্নাঞ্চল। ব্রক্ষ্মপুত্র-যমুনা নদীর বাহাদুরাবাদ পয়েন্টে এখন যে পানিপ্রবাহ তা গত ৬০ বছরের মধ্যে সবচেয়ে বেশি। ব্রক্ষ্মপুত্র-যমুনা নদীর নুনখাওয়া, চিলমারি, সারিয়াকান্দি, সিরাজগঞ্জ এবং আরিচার মতো স্পর্শকাতর পয়েন্টে আগামী ২৪ ঘণ্টায় পানি আরো বাড়বে বলে আশঙ্কা

By সম্পাদনা পর্ষদ on মঙ্গলবার, ১৫ অগাস্ট ২০১৭ ১৯:৫৮

গণসূর্যের মঞ্চ কাঁপিয়ে কবি শোনালেন তাঁর অমর কবিতা খানি, "এবারের সংগ্রাম আমাদের মুক্তির সংগ্রাম , এবারের সংগ্রাম স্বাধীনতার সংগ্রাম "৷ সেই থেকে স্বাধীনতা শব্দটি আমাদের।বঙ্গবন্ধু ও আমাদের স্বাধীনতা সংগ্রামকে এভাবে কবিতায় ফুটিয়ে তুলেছেন কবি নির্মলেন্দু গুণ । তার কবিতার মতো প্রতিটি বাঙালির জানা, শেখ মুজিবুর রহমানই আমাদের ঠিকানা। আমরা যে আজ স্বাধীন তার কারণ বঙ্গবন্ধু। আমরা যে আজ বাংলাদেশ তার নেপথ্যে শেখ মুজিব। মা-বাবার খোকা থেকে তিনি আমাদের জাতির জনক।  মহান স্বাধীনতা সংগ্রামসহ বহু সংগ্রামের কারিগর আমাদের জাতির জনক। অথচ অকৃতজ্ঞ এই মাটিতে ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট মধ্যরাতে একদল বিপথগামী সেনা কর্মকর্তা হত্যা করে শেখ মুজিব এবং তাঁর পরিবারের সদস্যদের। সেই কালোরাতে বেঁচে যান বঙ্গবন্ধুর দ

By সম্পাদনা পর্ষদ on সোমবার, ১৪ অগাস্ট ২০১৭ ২০:২০

দেশের ব্রহ্মপুত্র ও গঙ্গা অববাহিকায় যেসব নদী, সেগুলোর পানি বেড়ে ১৯৮৮ সালের বন্যা পরিস্থিতি তৈরি করবে বলে আশঙ্কা করছেন আবহাওয়াবিদরা। ইতিমধ্যে ভারী বর্ষণ ও ভারত থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢলে দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে নদ-নদী ও হাওরের পানি বেড়ে বন্যায় দেশের ১০ জেলার অনেক অঞ্চল তলিয়ে গেছে। সাধারণত গঙ্গা অববাহিকায় আগস্টের দ্বিতীয় সপ্তাহ থেকে সেপ্টেম্বর পর্যন্ত প্রবল বৃষ্টিপাতের কারণে ভারতের বিহার, উত্তরপ্রদেশ ও নেপালে বন্যা হয়। বাংলাদেশেও এর প্রভাব পড়ে। আবার ব্রহ্মপুত্র-যমুনা অববাহিকায় জুলাই-আগস্টে বন্যা হয়। আর মেঘনা অববাহিকায় জুন থেকে সেপ্টেম্বর পর্যন্ত বন্যা হয়ে থাকে। কিন্তু এবার পরিস্থিতি কিছুটা ভিন্ন। কারণ ব্রহ্মপুত্র-যমুনা অংশে পানি বাড়ার হার গড়ে ৫০ সেন্টিমিটার। এরইমধ্যে চিলমা

By সম্পাদনা পর্ষদ on রবিবার , ১৩ অগাস্ট ২০১৭ ২০:৫৬

জাতিসংঘ ঘোষিত সহস্রাব্দ উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রার (এমডিজি) বেশকিছু লক্ষ্যমাত্রাসহ মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষায় মেয়েদের অংশগ্রহণে সফলতার জন্য আন্তর্জাতিকভাবে বাংলাদেশের প্রশংসিত হওয়ার পাশাপাশি তাদের পাশের হারও আশা জাগানোর মতো বিষয়। সর্বশেষ এইচএসসি পরীক্ষার ফলাফলে দেখা গেছে, মেয়েদের পাসের হার ৭০.৪৩ আর ছেলেদের পাসের হার ৬৭.৬১। গত বছর এই সংখ্যা আরও বেশি ছিল। এসএসসির ফলাফলেও একই অবস্থা লক্ষ্য করা গেছে। এসএসসিতে ছাত্রীদের মোট পাসের হার ৮০.৭৮ এবং ছাত্রদের ৭৯.৯৩। এই পরিসংখ্যানগুলো আশার খবর হলেও শনিবার চ্যানেল আইয়ে প্রচারিত এক প্রতিবেদনে দেখা গেছে, মাধ্যমিক স্তরে এগিয়ে থাকলেও উচ্চশিক্ষায় ভর্তিতে ছেলেদের চেয়ে মেয়েরা পিছিয়ে রয়েছে। মাধ্যমিক স্তরে যেখানে মেয়ে শিক্ষার্থ

By সম্পাদনা পর্ষদ on শনিবার, ১২ অগাস্ট ২০১৭ ১৯:৫৭