সম্পাদকীয়

ভয়ঙ্কর এক পরিস্থিতি মোকাবিলা করে জীবনযুদ্ধে ঘুরে দাঁড়াচ্ছে সহায়-সম্বল আর স্বজনহারা রাঙামাটির পাহাড়ের মানুষ। নতুন স্বপ্ন নিয়ে সরকারী আশ্রয়কেন্দ্রে আশ্রয় নেয়া মানুষগুলো প্রস্তুতি নিচ্ছে স্বাভাবিক জীবনে ফেরার। কিছুদিনের মধ্যেই তাদেরকে ছাড়তে হবে আশ্রয়কেন্দ্র। ফিরতে হবে নিজেদের ঠিকানায়। তবে এরই মধ্যে অনাবিল আনন্দের উৎস হয়ে তাদের মাঝে আসে ঈদ উল ‍ফিতর। সেই ঈদের অানন্দে তারা কিছুটা হলেও ভুলেছে পাহাড় ধসের দুঃসহ স্মৃতি। কয়েকদিন অাগেও তাদের চিন্তায় ছিল ঈদে কী খাবেন, কী পরবেন। কিন্তু সরকারের উদ্যোগে আর সেনাবাহিনীর সহায়তায় শেষ পর্যন্ত তাদেরকে ঈদের আনন্দ থেকে বঞ্চিত হতে হয়নি। সে চিত্র উঠে এসেছে চ্যানেল আই অনলাইনের প্রতিবেদনে। ঢাকা থেকে পাঠানো প্রতিবেদক নাসিমুল শুভ দু'দিন ধরে আ

By সম্পাদনা পর্ষদ on সোমবার, ২৬ জুন ২০১৭ ২২:৫৮

শান্তি, আনন্দ আর মুসলিম জাহানের ঐক্যের বার্তা নিয়ে প্রতি বছরের ন্যায় আমাদের জীবনে আবার এসেছে পবিত্র ঈদ উল ফিতর। এক মাস সিয়াম সাধনার পরে ঈদ উল ফিতর একই সঙ্গে উৎসব ও ইবাদতের আধ্যাত্মিক স্বাদ দিয়ে যায় প্রতিটি ধর্মপ্রাণ মুসলিমের মনে। ধর্মীয় মূল্যবোধে পরিবার, সমাজ ও রাষ্ট্রীয় ব্যবস্থাপনা শৃঙ্খলিত করে ও মানবিকতা জাগ্রত করে। ঈদ শুধু নিছক আনন্দ আর ফূর্তির নয়; এ থেকে আমাদের জীবনের জন্য শিক্ষণীয় আছে অনেক কিছুই। আমাদের উপলব্ধিতে ধরে রাখতে হবে যে ঈদ হচ্ছে কল্যাণমুখী আনন্দ। কলুষতামুক্ত পবিত্র আনন্দ, ত্যাগের আনন্দ। উপহার সামগ্রীর আদান প্রদানের মাধ্যমে একে অন্যের মধ্যে আন্তরিকতা যেমন বাড়ে, তেমনি ফিতরা ও যাকাতের মাধ্যমে সমাজে ধনী ও গরীবের মধ্যে ব্যবধান কিছুটা কমে। শাওয়ালের চাঁদ উদিত হওয়ার

By সম্পাদনা পর্ষদ on রবিবার , ২৫ জুন ২০১৭ ২১:০১

পুরো চলচ্চিত্র অঙ্গন আজ একরকম অস্থিতিশীল। অভিযোগ, পাল্টা অভিযোগ; বয়কট, পাল্টা ব্যবস্থা; নিষিদ্ধ, পদত্যাগ—এমনি নানা কিছু ঘটছে। কিন্তু এই সব কিছু কি চলচ্চিত্রের স্বার্থেই ঘটছে? নাকি এর পেছনে লুকিয়ে আছে অন্য অনেক কিছু? কেউ কি এসব গল্পের সঠিক অনুসন্ধান করেছি? গত শতকের নব্বই দশকের চিত্রনায়ক প্রয়াত সালমান শাহর নাম এখনো অনেকেরই মনে আছে। অল্প সময়েই তিনি দারুণ জনপ্রিয় হন, খ্যাতির চূড়ায় পৌঁছে যান। সালমান শাহ আছে, তার মানে এই ছবি ব্যবসা সফল হবে, প্রযোজকের লগ্নি করা টাকা উঠে আসবে। আর তা সালমান শাহ নিজেও বেশ জানতেন। এ কারণেই প্রযোজকদের বন্ধু না হয়ে তাদের ওপর ক্রমেই চড়াও হন। ৩–৪ লাখ টাকা পারিশ্রমিক থেকে দ্রুত ৮–১০ লাখ টাকা দাবি করেন। চলচ্চিত্রে এক সময় সালমান শাহ বন্ধুহীন হয়ে পড়েন। এ সময়

By সম্পাদনা পর্ষদ on শনিবার, ২৪ জুন ২০১৭ ২৩:২৫

১৯৪৯ সালে ঢাকার টিকাটুলীর রোজ গার্ডেন প্যালেসে প্রতিষ্ঠার পর ভাষা আন্দোলন থেকে শুরু করে মুক্তিযুদ্ধসহ গণতান্ত্রিক সকল আন্দোলনে নেতৃত্ব দেয়া প্রাচীনতম রাজনৈতিক দল আওয়ামী লীগ ৬৮ বছরে পা রেখেছে। ধর্মনিরপেক্ষতার চর্চা এবং অসাম্প্রদায়িক চেতনায় বিশ্বাসী এই দলের সবচেয়ে বড় অর্জন জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বে বাংলাদেশের স্বাধীনতা অর্জন। কিন্তু যাদের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করে এই স্বাধীনতা এসেছে সেই পাকিস্তানি গোষ্ঠীর সমর্থকদের হাতে ১৯৭৫ সালের ১৫ই আগস্ট জাতির জনককে সপরিবারে হত্যার পর এই দলের বহু নেতা-কর্মী আবারও হত্যা ও নির্যাতনের শিকার হন। এরপর ১৯৮১ সালে দেশে ফিরে বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা আওয়ামী লীগের হাল ধরেন। তার নেতৃত্বে দল এখন রাষ্ট্রক্ষমতায় থাকলেও বিরোধী দলে থাকার সময় তাকে হত্য

By সম্পাদনা পর্ষদ on শুক্রবার, ২৩ জুন ২০১৭ ২০:০৫

যে রাতকে আমরা শবে কদর বলে জানি, পবিত্র কোরআনের ভাষায় তা লাইলাতুল কদর। মুসলমানদের জন্য এটি একটি অতুলনীয় রাত। রমজান মাস পবিত্র কোরআন নাজিলের মাস। আর শবে কদর কোরআন নাজিলের রাত। এ রাতেই হেরা পর্বতের গুহায় মহান আল্লাহতায়ালার পক্ষ থেকে হজরত জিবরাইল (আ.) এর মাধ্যমে বিশ্বনবী হজরত মুহাম্মাদ (সা.)-এর প্রতি আল কোরআন অবতীর্ণ হয়। এই রাতের রয়েছে নানা মহিমাগাথা। রমজানের শেষ দশকের বেজোড় রাতগুলোতে শবে কদরকে সন্ধান করা হয়। তবে প্রচলিত ধারামতে ২৭ তারিখের রাতকেই বেশি গুরুত্ব দেয়া হয়। এই রাতের গুরুত্ব সম্পর্কে হজরত আয়েশা সিদ্দিকা (রা.) রাসুলুল্লাহ (সা.)-কে জিজ্ঞাসা করেছিলেন, হে রাসুল! আমি যদি লাইলাতুল কদর সম্পর্কে জানতে পারি, তাহলে আমি ওই রাতে আল্লাহর কাছে কী দোয়া করব? রাসুলুল্লাহ (সা.) জবাবে বলেন: তুমি বলবে,

By সম্পাদনা পর্ষদ on বৃহস্পতিবার, ২২ জুন ২০১৭ ২৩:০৩

২০১৪-১৫ অর্থবছরে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য এবং উপ-উপাচার্যের আপ্যায়ন ব্যয় ধরা হয়েছিল সাড়ে ১০ লাখ টাকা। এ নিয়ে সে সময়ে বেশ আলোচনা-সামলোচনা হয়েছিল। বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষণা খাতের চেয়ে আপ্যায়ন ব্যয় বেশি হওয়াতে ওই আলোচনার সূত্রপাত। সম্প্রতি আলোনায় আসে রংপুরে বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের সদ্যবিদায়ী উপাচার্যের আপ্যায়ন ব্যয়। তিনি দুই বছরে ক্যাম্পাসে ১৬৫ দিন অবস্থান করে আপ্যায়ন বাবদ খরচ করেছিলেন ৯ লাখ ৭৪ হাজার ৪৯৫ টাকা। মাত্রাতিরিক্ত আপ্যায়ন ব্যয় ও তিনটি গাড়ি ব্যবহারসহ নানা বিষয় উঠে আসে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের (ইউজিসি) তদন্ত প্রতিবেদনে। গণমাধ্যমসহ সামাজিক মাধ্যমেও বিষয়টি ব্যাপক আলোচিত হয়। উপাচার্যদের ক্ষমতা ও নেতিবাচক এসব তথ্যে দেশের পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের উপা

By সম্পাদনা পর্ষদ on বুধবার, ২১ জুন ২০১৭ ১৯:০৫

আসন্ন ঈদ উপলক্ষে আত্মীয়-পরিজনের সঙ্গে আনন্দের মুহূর্ত কাটাতে নাড়ির টানে কর্মব্যস্ত মানুষেরা রাজধানী থেকে গ্রামের পথে যাত্রা করছেন। কিন্তু ইতোমধ্যেই দেশের বিভিন্ন মহাসড়কে ঘরমুখো মানুষকে নানা দুর্ভোগের মুখোমুখি হতে হচ্ছে বলে খবর পাওয়া যাচ্ছে। এসব মানুষের ঈদযাত্রা নির্বিঘ্ন করতে সরকারের বিভিন্ন পদক্ষেপের কথা শোনা গেলেও তা প্রয়োজনের তুলনায় খুবই অপ্রতুল। চ্যানেল আই’র প্রতিবেদনে জানা যায়, গত বছর গাজীপুরের চৌরাস্তা থেকে ময়মনসিংহ পর্যন্ত ফোর লেনের কাজ শেষ হলেও গাজীপুর চৌরাস্তা পর্যন্ত এখনও মহাদুর্ভোগের কবলে। এর মধ্যে আব্দুল্লাহপুর থেকে চৌরাস্তা পর্যন্ত রাস্তা আট লেনের হলেও দুই তৃতীয়াংশই সুয়ারেজের নোংরা পানিতে থৈ থৈ। সেইসঙ্গে রয়েছে ঈদের আগে সংস্কার কাজে টঙ্গি থেকে চৌ

By সম্পাদনা পর্ষদ on মঙ্গলবার, ২০ জুন ২০১৭ ১৯:০৮

‘জাতীয় অনলাইন গণমাধ্যম নীতিমালা- ২০১৭’ এর খসড়া অনুমোদন করেছে মন্ত্রিসভা। অনুমোদনের পর এ প্রসঙ্গে মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম বলেছেন, গণমাধ্যম নীতিমালার আলোকেই অনলাইন গণমাধ্যম নীতিমালা করা হয়েছে যেন অনলাইন মিডিয়া সুনিয়ন্ত্রিতভাবে কাজ করে। এই খসড়া নীতিমালার গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হলো; প্রস্তাবিত সম্প্রচার কমিশনের কাছ থেকে অনলাইন গণমাধ্যমকে নিবন্ধন নিতে হবে। তবে কমিশন হওয়ার আগ পর্যন্ত এ ব্যাপারে দেখাশোনা করবে তথ্য মন্ত্রণালয়। খসড়ায় ১৯৭৩ সালের ছাপাখানা ও প্রকাশনা অ্যাক্ট অনুযায়ী নিবন্ধিত সংবাদপত্র এবং টেলিভিশনগুলোর অনলাইন সংস্করণের জন্য আলাদা নিবন্ধন প্রয়োজন নেই বলে উল্লেখ করা হয়েছে। শুধু কমিশনকে তা জানালেই হবে। নীতিমালায় সব অনলাইন গনমাধ্যমের জন্য নিবন্ধন ফি রাখা হয়েছ

By সম্পাদনা পর্ষদ on সোমবার, ১৯ জুন ২০১৭ ২১:১৫

হামলার শিকার হয়ে পাহাড় ধসে ক্ষতবিক্ষত রাঙামাটি পরিদর্শন না করেই ঢাকায় ফিরেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। রোববার দুর্গত এলাকায় যাওয়ার পথে দুর্বৃত্তদের হামলার শিকার হন তিনি। পূর্বঘোষিত কর্মসূচির অংশ হিসেবে রোববার সকালে পার্বত্য এলাকার উদ্দেশে রওনা করার পর চট্টগ্রামের রাঙ্গুনিয়ায় দুর্বৃত্তদের হামলার মুখে পড়েন মির্জা ফখরুলসহ বিএনপির প্রতিনিধিদলের সদস্যরা। বিএনপির দাবি, সরকার দলীয় সমর্থকরা এই হামলার জন্য দায়ী। যদিও ঘটনার পরে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বিএনপি প্রতিনিধিদলের ওপর হামলার ঘটনায় দুঃখ প্রকাশ করেছেন। হামলার সঙ্গে জড়িতদের খুঁজে বের করার ঘোষণাও দিয়েছেন তিনি। ঘটনা যেহেতু স্থানীয় পর্যায়ে হয়েছে কাজেই আইনশৃঙ্খলা বাহিনী আন্তরিক হলে জ

By সম্পাদনা পর্ষদ on রবিবার , ১৮ জুন ২০১৭ ২০:২১

পাহাড় ধসে দেড় শতাধিক মানুষ নিহত এবং অনেক মানুষ আহত হওয়ার পর যোগাযোগ ও জ্বালানিসহ খাদ্যসংকটে পার্বত্য এলাকায় যখন ভয়াবহ বিপর্যয় চলছে তখন আমরা বিভিন্ন রাজনৈতিক দল, সরকারি-বেসরকারি প্রতিষ্ঠান এবং ব্যক্তি পর্যায়ে পবিত্র রমজানে ত্যাগের বদলে ইফতার পার্টির নামে বাহারি আয়োজনে অপচয়ের সংস্কৃতিতে মেতে উঠেছি। পাহাড়ের মানুষের এমন মানবিক সংকটে সরকারের পক্ষ থেকে ত্রাণ সহায়তা থাকলেও প্রয়োজনের তুলনায় তা অনেক কম বলেই স্থানীয়রা দাবি করছেন। সেখানে সেনাবাহিনীর তত্ত্বাবধানে সরকারি কিছু ত্রাণ সহায়তার খবর পাওয়া গেলেও বেসরকারি উদ্যোগ তেমন একটা নেই বললেই চলে। বিষয়টি নিয়ে ফেসবুকে পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলমের দেয়া একটি স্ট্যাটাস আমরা লক্ষ্য করেছি। নিজের ফেসবুক ওয়ালে দেয়া স্ট্যা

By সম্পাদনা পর্ষদ on শনিবার, ১৭ জুন ২০১৭ ২০:৩১