রশিদ নামে এক প্রতিমাশিল্পীকে একাত্তরের এপ্রিল মাসে ময়মনসিংহ শহরে হত্যা করা হয়। তাকে ডাকা হয় ‘একাত্তরের যীশু’ নামে। তবে জাহিদ নেওয়াজ খানের প্রথম উপন্যাস ‘মূর্তিকারিগর’-এর গল্পটি একেবারেই তার জীবনভিত্তিক নয়।

লেখক বলছেন: রশিদের জীবনের গল্পগুলো হয়তো আরো গল্পময়, কিন্তু মৃত্যুর ঘটনাটি ছাড়া গল্পের প্রতিমাশিল্পীর সবগুলো গল্পই কল্পনা। চরিত্রগুলোও কাল্পনিক। ঐতিহাসিক সময়ের বর্ণনায় কিছু বাস্তব নাম এসেছে, তবে এটি ইতিহাসভিত্তিক কোন উপন্যাসও নয়।

‘মূর্তিকারিগর’-এ প্রকৃতপক্ষে একটি নির্দিষ্ট সময়ে বেড়ে উঠা এক শিল্পীর কথা বলা হয়েছে, শেষ পর্যন্ত যা মানুষের মানবিকতা এবং অমানবিকতার গল্প। জেলা শহর ময়মনসিংহের প্রেক্ষাপটে উঠে এসেছে দেশভাগের পর রাজনৈতিক ও সামাজিক ইতিহাসের একটি অংশ।

উপন্যাসটি ভোরের কাগজের ঈদ সংখ্যায় প্রকাশ হওয়ার পর থেকেই আলোচিত হতে থাকে। কয়েক মাসের মধ্যে তা বই হিসেবে প্রকাশ করেছে ‘আবিষ্কার’ প্রকাশনী।

জাহিদ নেওয়াজ খান

সাংবাদিক হিসেবে এর আগে একাধিক বইয়ের লেখক জাহিদ নেওয়াজ খান উপন্যাস কেন লিখলেন? জানতে চাইলে তিনি বলেন: আমার প্রথম বই ‘বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ড: সামরিক ও গোয়েন্দা ব্যর্থতার প্রামাণ্য দলিল’ প্রকাশ হওয়ার পর একটি সাক্ষাতকারে বলেছিলাম, জীবনে লেখকই হতে চেয়েছিলাম। অনেকক্ষেত্রে ব্যর্থ লেখকরা সাংবাদিক হয়, আমিও তাই সাংবাদিক। এখন সেখান থেকে হয়তো আবার লেখক হওয়ার চেষ্টা করছি।

‘তবে, গল্পের প্লটটি যেহেতু এমন একজনকে নিয়ে যিনি বাস্তবে ছিলেন, তাই বলা যায় এখানেও হয়তো আমার সাংবাদিক সত্তা কাজ করেছে। কিন্তু, এটা– আমার প্রথম উপন্যাস– যেন সাংবাদিকতা না হয়ে যায়, সেজন্য কোন গবেষণায় যাইনি। একটি গল্পই লিখতে চেয়েছি।’

তিনি জানান: গত রোজার আগে হুট করেই মাথায় উপন্যাসটি লেখার চিন্তা আসে। অফিস থেকে কয়েকদিন ছুটি নিয়ে তিনি টানা তা লিখে ফেলেন যা ভোরের কাগজের ঈদ সংখ্যায় ‘মূর্তিকারিগর কিংবা মানুষপাঠ’ নামে প্রকাশিত হয়।

এজন্য তিনি ভোরের কাগজের সম্পাদককে ধন্যবাদ জানিয়ে বলেন: সাংবাদিক হিসেবে হয়তো আমাকে কেউ কেউ চেনেন, কিন্তু ক্রিয়েটিভ লেখক হিসেবে কেউ না। একটি শিশুতোষ নাটিকা ছাড়া গত ২৫ বছরে আমার সৃজনশীল কোন লেখা প্রকাশ হয়নি। তাই একজন নাম না জানা লেখকের উপন্যাস ছাপিয়ে শ্যামলদা বড় ঝুঁকিই নিয়েছেন বলা যায়। একই কথা বলা যায় বই হিসেবে এর প্রকাশক দেলোয়ার হাসানের ক্ষেত্রে।

বইটির প্রচ্ছদ করেছেন শিল্পী ধ্রুব এষ।

যেখানে পাওয়া যাচ্ছে ‘মূর্তিকারিগর
রকমারি.কম ছাড়াও ‘মূর্তিকারিগর’ পাওয়া যাচ্ছে
ঢাকা: পাঠক সমাবেশ, শাহবাগ এবং আবিষ্কার, কনকর্ড টাওয়ার, কাঁটাবন
চট্টগ্রাম: বাতিঘর
সিলেট: বইপার্ক.কম এবং বই বিচিত্রা
রাজশাহী: বিদ্যাসাগর
বগুড়া: বই বিচিত্রা
ময়মনসিংহ: আজাদ অঙ্গন